July 16, 2024
নীলফামারীতে বিশ্ব জনসংখ্যা দিবস পালিত হয়েছে

নীলফামারীতে সারাদিনের বৃষ্টিপাতে নিম্নাঞ্চল প্লাবিত

Read Time:2 Minute, 42 Second

নীলফামারীতে আজ শুক্রবার (২৫ আগস্ট) সারাদিন বৃষ্টিপাতে নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়ে পড়েছে। অনেক জায়গায় বাসা-বাড়িতেও পানি উঠেছে। কোথাও আবার ফসলের মাঠ পানিতে তলিয়ে গেছে।

কেউ কেউ মাছ ধরার জন্য জাল ফেলে মাছও ধরছেন। তবে এমন পরিস্থিতিতে বন্যার্ত এলাকার লোকজন এবং নিম্ন আয়ের মানুষরা বেকায়দায় পড়েছেন।

নীলফামারী জেলার সৈয়দপুর পৌরসভার পাড়া-মহল্লায় পানি জমে যাওয়ায় লেকজন চরম দুর্ভোগে পড়েছেন। শহরের প্রধান সড়কে হাঁটু পানি মাড়িয়ে লোকজনকে চলাচল করতে দেখা গিয়েছে। এছাড়া বাঁশবাড়ি, সাহেবপাড়া, চাঁদনগর, মুন্সিপাড়া, আলম প্রেস লেন, গোলাহাট এলাকার প্রধান সড়কে পানির স্রোত বয়ে যাচ্ছে। শহরের বিভিন্ন এলাকার ড্রেনেজ ব্যবস্থা ভেঙে গেছে।

এবারে আষাঢ়, শ্রাবণে নীলফামারী জেলায় তেমন বৃষ্টিপাত হয়নি। কৃষকরা শ্যালো মেশিন চালিয়ে আমনের চারা লাগায়েছেন। আর সেই চারা সতেজ হওয়ার সময় এমন ভারি বৃষ্টিপাত কৃষকদের ভাবিয়ে তুলেছে।

নিম্নাঞ্চলে লাগানো চারা পানিতে বেশিদিন তলিয়ে থাকলে মারা যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। এ সময় কৃষক আর আমনের চারাও সংগ্রহ করতে পারবেন না।

অপরদিকে ডিমলায় তিস্তার পানি বৃদ্ধি অব্যাহত আছে। নদীর তীরবর্তী ৬টি ইউনিয়নের ১৫টি চরের অন্তত ১০,০০০ পরিবার পানিবন্দি হয়ে পড়েছে। এ ছাড়া উপজেলার পশ্চিম কিছামত ছাতনাই, খড়িবাড়ি, ঝাড় সিঙ্গেশ্বর, পূর্ব খড়িবাড়ি, চর খড়িবাড়ি, তিস্তা বাজার, ছাতুনামা, বাইশপুকুর, কেল্লাপাড়া এবং ভেন্ডাবাড়ি এলাকার নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে।

টেপাখড়িবাড়ি ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান মোঃ ময়নুল হক বলেন, সকাল হতে তিস্তা নদীর পানি বাড়তে শুরু করে। পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকায় বন্যাকবলিত মানুষ নিরাপদ আশ্রয়ে যেতে শুরু করেছেন।

Happy
Happy
0 %
Sad
Sad
0 %
Excited
Excited
0 %
Sleepy
Sleepy
0 %
Angry
Angry
0 %
Surprise
Surprise
0 %
কলা ভাগাভাগি নিয়ে দ্বন্দ্ব, লাঠির আঘাতে এক যুবকের মৃত্যু Previous post নবাবগঞ্জে নিজের ছেলের লাঠির আঘাতে বাবার মৃত্যু
তিস্তা ও দুধকুমারের পানি বিপৎসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে Next post তিস্তার পানি বিপৎসীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে